শিরোনাম

জলাবদ্ধতা: চট্টগ্রামের খালের মুখের বাঁধ ৩০ জুনের মধ্যে সরছে

বায়েজিদ  ডেস্ক :   জলাবদ্ধতা নিরসনে সিডিএর চলমান মেগা প্রকল্পের কাজ পুরোপুরি শেষ না হওয়া পর্যন্ত নাগরিক দুর্ভোগ কমানোর লক্ষ্যে খালে থাকা সব বাঁধ ৩০ জুনের মধ্যে অপসারণের সিদ্ধান্ত হয়েছে।

সোমবার (১৪ জুন) চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) টাইগারপাস অস্থায়ী কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে জলবদ্ধতা নিরসনে সব সেবা সংস্থার সমন্বয় সভায় এ সিদ্ধান্তের ঘোষণা আসে।

চসিক মেয়র মো. রেজাউল করিম চৌধুরীর সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (সিডিএ) চেয়ারম্যান এম জহিরুল আলম দোভাষ, অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (উন্নয়ন) মোহাম্মদ মিজানুর রহমান, চসিক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মুহাম্মদ মোজাম্মেল হক, পরিবেশ অধিদফতরের পরিচালক মো. নুরুল্লাহ নুরী, চসিক সচিব খালেদ মাহমুদ, চসিক প্রধান প্রকৌশলী রফিকুল ইসলাম, মেয়রের একান্ত সচিব মুহাম্মদ আবুল হাশেম, চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষের প্রধান প্রকৌশলী মাহমুদুল হোসেন খান, চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-পুলিশ কর্মকর্তা এসএম মোস্তাইন হোসেন, সিডিএ জলাবদ্ধতা মেগা প্রকল্প বাস্তবায়নে নিয়োজিত ৩৪ ইঞ্জিনিয়ার ব্রিগেডের প্রকল্প কর্মকর্তা মেজর পঙ্কজ মল্লিক, সিডিএর প্রধান প্রকৌশলী কাজী হাসান বিন শামস, বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী শিবেন্দু খাস্তগীর প্রমুখ।

মেয়র বলেন, নগরে চলমান জলাবদ্ধতা মেগা প্রকল্পের কাজ সম্পন্ন হলে জলাবদ্ধতা থেকে মুক্তি মিলবে আশা করা যায়। ইতিমধ্যে এ প্রকল্পের কাজ ৫০ শতাংশ শেষ হয়েছে। এখনো খালে অস্থায়ী বাঁধ আছে। সিডিএ তা সরাচ্ছে। তবে জলাবদ্ধতা যাতে এবারের বর্ষায় নাগরিক দুর্ভোগ না বাড়ায় তা নিয়ে সব সংস্থার সুচিন্তিত মতামত প্রয়োজন। মতামতের ভিত্তিতে সিদ্ধান্ত নিয়ে তা কার্যকর করতে হবে সব সংস্থাকে। না হয় প্রধানমন্ত্রীর বরাদ্দ দেওয়া মেগা প্রকল্পের টাকার অপচয় হবে, যা কাম্য নয়।

সম্পাদনা-এসপিটি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*